নিফাক এর আভিধানিক ও পারিভাষিক অর্থ ?এটা কত প্রকার ও কি কি

উপস্থাপনা : নিফাক বা মুনাফিকী ইসলাম ও মুসলমানদের জন্য চরম ক্ষতিকর বিষয়। এটি জঘন্য ও ঘৃণ্য আচরণ। কাফের মুশরিকরা সরাসরি ইসলামের ক্ষতিসাধনে লিপ্ত; কিন্তু মুনাফিকরা ছদ্মবেশে প্রতারণা ও ছলচাতুরির আশ্রয় নিয়ে ইসলাম ও মুসলমানদের সীমাহীন ক্ষতি করে থাকে। 

এরা মনে মনে কুফরী গোপন রেখে কেবল সাময়িক সুবিধা লাভের জন্য প্রকাশ্যে ঈমান ও ইসলাম প্রকাশ করে থাকে। নিম্নে প্রশ্নালোকে নেফাকের পরিচয় ও প্রকারভেদ আলোচনা করা হলো।

নিফাক এর আভিধানিক অর্থ :- 

নিফাক  শব্দটি বাবে مفاعله - এর মাসদার। এটা  نفق ধাতু থেকে নির্গত। এর আভিধানিক অর্থ হচ্ছে-

১. মনে কোনো বিষয় গোপন রেখে মুখে তার বিপরীত প্রকাশ করা ।

2. মনে যা আছে তার বিপরীত প্রকাশ করা।

৩. ভূমির নিচের গর্ত।

৪. الكتمان তথা গোপন করা।যেহেতু মুনাফিকরা তাদের কুফরী আকিদা গোপন করে রাখে, সেহেতু তাদেরকে মুনাফিক বলা হয় ।

৫. কেউ বলেন, এর অর্থ হচ্ছে, ব্যয় করা। যেমন বলা হয় نفق الشيء এখান থেকে انفاق শব্দের উৎপত্তি।

5. শত্রুতা গোপন রেখে বন্ধুত্ব প্রকাশ করা ।

নিফাক-এর পারিভাষিক সংজ্ঞা :

সংজ্ঞা :-  ইসলামি পরিভাষায় অন্তরে কুফর ও অবাধ্যতা গোপন রেখে মুখে ইমানদারসুলভ বাক্য উচ্চারণ এবং লোক দেখানো অনুষ্ঠান সম্পন্ন করাকে নিফাক বলে।

২. আল্লামা আইনী (র) বলেন- নেফাক হচ্ছে, কুফরকে গোপন রেখে ইসলামকে প্রকাশ করা । 

৩. ইবনে সাইয়েদ (র) বলেন- অর্থাৎ, ইসলামে একদিক দিয়ে প্রবেশ করে, অন্যদিক দিয়ে বের হয়ে যাওয়ার নাম নেফাক। 

৬. আবার কেউ বলেন- النفاق هو اخفاء الكفر واظهار الايمان

অর্থাৎ, অন্তরে কুফর গোপন রেখে ঈমান প্রকাশ করে বেড়ানোকে নিফাক বলা হয়। পবিত্র কুরআনে -কে অন্তরের ব্যাধি বলে আখ্যায়িত করা হয়েছে। 

আরও পড়ুন :- নিফাকের কুফল ও পরিণত সম্পর্কে - ১০ টি বাক্য

নিফাকের-এর প্রকারভেদ :- 

নেফাক দু'প্রকার। যথা- ১. نفاق عملي (কার্যত নেফাক) ; ২. نفاق اعتقادي (আকিদাগত নেফাক) . 

নিম্নে এদের পরিচয় বর্ণনা করা হলো। যেমন-

১. نفاق عملي; তথা কার্যত নেফাক : 

نفاق عملي হলো কর্মক্ষেত্রে মুনাফিক। অর্থাৎ, যাদের আমলের সাথে ইসলামের দিক নির্দেশনার কোনো মিল নেই। তবে এরা ইসলাম বহির্ভূত নয় ।

2. نفاق اعتقادي, তথা আকিদাগত নেফাক : 

نفاق اعتقادي হলো বিশ্বাসের দিক থেকে মুনাফিক। অর্থাৎ যারা কোনো স্বার্থ চরিতার্থ করার উদ্দেশ্যে মুখে ইসলাম প্রকাশ করে আর অন্তরে নেফাকী গোপন রাখে। এদের পরিণতি সম্পর্কে আল্লাহ তায়ালা বলেন-ان المنافقين في الدرك الاسفل من النار প্রকৃতপক্ষে এরা মুসলিম নয়। ইবনে মাসউদ (রা) বলেন, বর্তমানকালের নেফাক পোষণকারী তথা মুনাফিক হয়তো মুসলিম নয়তো কাফের।

উপসংহার : নেফাক মানব চরিত্রের জঘন্য ও ঘৃণ্য আচরণ। এর ফলে সমাজে নানা ধরনের ফেতনা ফাসাদ ও অবিশ্বাস সৃষ্টি হয়। তাই মুনাফিকী আচরণ পরিহার করা এবং মুনাফিকদের কবল থেকে মুক্ত থাকা ঈমানের অপরিহার্য দাবী

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

শিক্ষাগার ওয়েবসাইটের নীতিমালা মেনে কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url