কম্পিউটার : বাংলা প্রবন্ধ রচনা - Class 8, 9 এবং SSC | PDF

উপস্থাপনা ঃ 

বিজ্ঞানের বিস্ময়কর অগ্রযাত্রায় সর্বশেষ চমকটি হচ্ছে কম্পিউটার। ছোট্ট একটি যন্ত্রের এত বহুমাত্রিক কর্মক্ষমতা অন্য কোন যন্ত্রের নেই । কম্পিউটার তার বর্ধিষ্ণু কর্মক্ষমতার দ্বারা মানুষের প্রতিটি প্রয়োজন পূরণ করছে। মানবজীবন আস্তে আস্তে কম্পিউটার বলয়ে বন্দী হয়ে পড়ছে। বিংশ শতাব্দীর সভ্যতাকে কম্পিউটার সভ্যতা বললেও অত্যুক্তি হবে না। 

কম্পিউটার শব্দের অর্থ : 

'Computer' শব্দটি ল্যাটিন ভাষাজাত। যার অর্থ 'গণনা'। অক্সফোর্ড অবিধানে কম্পিউটার শব্দের অর্থ করা হয়েছে ‘গণকযন্ত্র' । তবে বাংলায় কম্পিউটার-এর যথার্থ প্রতিশব্দ খুঁজে পাওয়া দুরূহ। কেননা কম্পিউটার-এর কর্ম পরিধি এখন এতই বিস্তৃত যে, ‘গণকযন্ত্র' বললে তার যথার্থ অর্থ প্রকাশ পায় না । আসলে কম্পিউটার এক ধরনের সবজান্তা যন্ত্র বিশেষ ।

কম্পিউটারের জন্ম : 

১৮৩৩ সালে বৈজ্ঞানিক চার্লস ব্যাবেজ এর মাথায় কম্পিউটারের ধারণা আসে। ব্যাবেজের এই পরিকল্পনা রূপায়িত হতে প্রায় এক শতাব্দী সময় লেগে যায় । ব্যাবেজের আগে ও পরে যে ধরনের গণকযন্ত্র প্রচলিত ছিল সেগুলো স্বয়ংক্রিয় ছিল না । ১৯৪৬ সালে প্রথম স্বয়ংক্রিয় ইলেকট্রনিক কম্পিউটার তৈরি করা হয় ।

আরও পড়ুন :- মানব কল্যাণে বিজ্ঞান  অথবা বিজ্ঞানের জয়যাত্রা - রচনা | PDF 

কম্পিউটারের বৈশিষ্ট্য : 

কম্পিউটার-এর নিজস্ব স্মৃতি ভাণ্ডার আছে। স্মৃতি ভাণ্ডারে কম্পিউটার সমস্ত কাজের সঠিক তথ্য জমা রাখে। কম্পিউটার সঠিকভাবে কাজ সমাধান করার জন্য চারটি বিষয়ের উপর নির্ভর করে। যেমন- ১. দ্রুত গণনা করার ক্ষমতা, ২. ভ্রমণ শূন্যতা, ৩. বিপুল তথ্য সংঘবদ্ধ করার ক্ষমতা এবং ৪. তথ্য প্রোগ্রাম অনুযায়ী কাজ করার ক্ষমতা ।

কম্পিউটারের অবদান ঃ 

দ্রুত ও নির্ভুল গণনা ও তথ্য সংগ্রহ করে সঠিক হিসেবের ক্ষেত্রে কম্পিউটারের দান অতুলনীয় । কম্পিউটার বর্তমানে মানুষের বিস্তর উপকার সাধন করছে। যে সব কাজ মানুষের পক্ষে অসম্ভব, সময় ও ব্যয়সাপেক্ষ, কম্পিউটার আবিষ্কারের পর সেসব কাজ অনেক সহজ ও দ্রুততর হয়ে পড়েছে। আজকের দিনে সময়ের মূল্য খুব বেশি। আর এ সময় বাঁচানোর অপরিহার্য যন্ত্র হচ্ছে কম্পিউটার।

কম্পিউটারের ব্যবহার : 

বর্তমান মানব সভ্যতায় কম্পিউটারের ব্যবহার বিচিত্র। নির্ভুল গণনা, বিভিন্ন তথ্য সংগ্রহ, রোগীর রোগ নির্ণয়, সমগ্র পৃথিবীর সাথে অতিদ্রুত যোগাযোগ স্থাপন করা, বই ছাপা, চিঠি লেখা, ছবি আঁকা, বিভিন্ন কাগজপত্র ফাইল দ্রুত খুঁজে বের করা, যুক্তিনির্ভর সিদ্ধান্ত, বাৎসরিক দিনপঞ্জী ইত্যাদি হিসেবের ব্যাপারে কম্পিউটার অতুলনীয় ।

সীমাবদ্ধতা : 

কম্পিউটারের নিজস্ব কোন চিন্তা নেই, মানুষের নির্দেশের বাইরে কোন কিছু করার ক্ষমতা তার নেই।

কম্পিউটারের বিস্ময় ঃ 

আধুনিক বিশ্বের বিস্ময় কম্পিউটার। এর সাহায্যে প্লেন, ট্রেনের আসন সংরক্ষণ, যানবাহন চলাচল নিয়ন্ত্রণ, বিভিন্ন প্রকার ভিডিও গেম খেলা, গান-বাজনা, সুর বাদ্য ইত্যাদি সংযোজন করা, পরীক্ষার খাতাপত্র পর্যবেক্ষণ করা, সমগ্র বিশ্বের সাথে স্বল্প সময়ে যোগাযোগ রক্ষা করা, হারানো জিনিস সহজে খুঁজে বের করা, এসবই কম্পিউটারের মাধ্যমে সম্ভব।

উপসংহার ঃ 

কম্পিউটারের উদ্ভাবন ও বিকাশ আধুনিক যুগের এক চরম বিস্ময় । বর্তমান এই জটিল যুগে কম্পিউটার আমাদের হাতের কাছে সমগ্র পৃথিবীকে এনে দিয়েছে। এর সঠিক প্রয়োগে পৃথিবীতে কল্যাণের আলো ফুটবে তা নিঃসন্দেহে বলা যায় ।



এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

শিক্ষাগার ওয়েবসাইটের নীতিমালা মেনে কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url