কম্পিউটার - বাংলা রচনা : ৩য় ৪র্থ ও ৫ম শ্রেণী | PDF

সূচনা : 

আধুনিক জ্ঞান-বিজ্ঞানের একটি অসাধারণ আবিষ্কার কম্পিউটার। কম্পিউটার মানুষের পরিশ্রমকে অনেক কমিয়ে দিয়েছে। কম্পিউটার একটি ল্যাটিন শব্দ। এর আভিধানিক অর্থ গণনাকারী ।

আবিষ্কার ও উন্নতি : 

আধুনিক কম্পিউটারের কথা প্রথম ভাবেন ব্রিটিশ গণিতবিদ চার্লস্ ব্যাবেজ। কিন্তু আধুনিক কম্পিউটার আবিষ্কার করেন হাওয়ার্ড এ্যাকিন। ১৯৪৬ সালে প্রথম পূর্ণাঙ্গ কম্পিউটার 'ইনিয়াক' আবিষ্কৃত হয়। যদিও ১৬৪২ সালে প্রথম সাধারণ গণনাকারী যন্ত্র হিসেবে কম্পিউটারের পথচলা শুরু হয়।

কাঠামো ও গঠনপ্রণালি : 

কম্পিউটারের পাঁচটি অংশ। এগুলো হলো : ১. ইনপুট; ২. আউটপুট; ৩. মেমরি; ৪. কন্ট্রোল ও ৫. গাণিতিক যুক্তি অংশ। এগুলোর মধ্যে মেমরি, কন্ট্রোল এবং গাণিতিক যুক্তি অংশকে একসাথে বলা হয় সেন্ট্রাল প্রসেসিং ইউনিট। কম্পিউটারের বাইরের যান্ত্রিক সরঞ্জামকে হার্ডওয়্যার এবং অভ্যন্তরীণ প্রোগ্রামগুলোকে সফটওয়্যার বলা হয় ।

আরও পড়ুন :- বাংলা প্রবন্ধ রচনা - মোবাইল ফোন : ৩য়, ৪র্থ ও ৫ম শ্রেণী

কম্পিউটারের অবদান : 

কম্পিউটার আজকাল মানুষকে নানাভাবে সাহায্য করছে। কম্পিউটার বিস্ময়কর ক্ষমতার অধিকারী। ডিজিটাল টেলিফোন, সেল্যুলার টেলিফোন, ই-মেইল, ই-কর্মাস, ইন্টারনেট ইত্যাদি কম্পিউটারের বিস্ময়। এর কাজের গতি অসাধারণ। এর ধারণক্ষমতা অনেক উন্নত।

উপকারিতা : 

কম্পিউটারের মাধ্যমে মানুষ চোখের পলকে কাজ করে। ব্যবসায় বাণিজ্য, বীমা, ব্যাংক, অফিস- আদালত, বিমান, রেলওয়ে ইত্যাদি সর্বস্থানে কম্পিউটার অনেক অবদান রাখে। বর্তমানে এসব জায়গায় কম্পিউটার ছাড়া চলে না। শিক্ষা, মুদ্রণ, প্রকাশনা সবক্ষেত্রে কম্পিউটার অশেষ উপকারী ।

অপকারিতা : 

কম্পিউটারের শক্তি সীমাহীন। তাই অনেক মানুষের কাজ কম্পিউটার করছে। ফলে বেকার সমস্যা বাড়ছে। মানুষ অলস হয়ে পড়ছে।

উপসংহার : 

কিছু সমস্যা তৈরি হলেও কম্পিউটার বিজ্ঞানের আশীর্বাদ।





এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

শিক্ষাগার ওয়েবসাইটের নীতিমালা মেনে কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url