ভাবসম্পসারণ - চরিত্র মানুষের অমূল্য সম্পদ (২টি )

মূলভাব : 

মানুষের জীবনের সর্বশ্রেষ্ঠ অমূল্য সম্পদ হলো তার চরিত্র । জগতের সকল স্থাবর-অস্থাবর সম্পদ অপেক্ষা অধিক মূল্যবান । এ চরিত্রের বলেই মানুষ সর্বত্র সম্মানিত হয়ে থাকে।

সম্প্রসারিত ভাব : 

মানবিক গুণাবলীর মধ্যে চরিত্র সর্বশ্রেষ্ঠ গুণ, যা টাকার বিনিময়েও ক্রয়-বিক্রয় হয় না । সূর্য এবং চন্দ্রের আলো যেমন পৃথিবীর অন্ধকার দূরীভূত করে, তেমনি চরিত্রগুণে মানুষ নিজেকে বিকশিত করতে পারে। চরিত্রহীন ব্যক্তি পশুর সমান । সে বিদ্বান হলেও মৃত্তিকা খন্ডের ন্যায় পরিত্যাজ্য, ঘৃণ্য ও তিরস্কৃত । 

ইংরেজিতে একটি প্রবাদ আছে--

"When money is lost nothing is lost.

When health is lost something is lost.

When character is lost everything is lost."

চরিত্রবান ব্যক্তিকে সবাই শ্রদ্ধা করে । চরিত্রের সৎ গুণাবলী মানব জীবনকে সমৃদ্ধ করে । চরিত্রবান ব্যক্তির সংস্পর্শে এসে মানুষ ধন্য হয়। আল্লাহর রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন:- "তোমাদের মধ্যে ওই ব্যক্তি সবচেয়ে বেশি পরহেজগার, যে চরিত্রের দিক দিয়ে উত্তম। 

কেননা চরিত্রবান ছাড়া কেউ আল্লাহর সান্নিধ্য লাভ করতে পারে না।  এজন্য মানুষের সবচেয়ে দামি সম্পদ হলো তার চরিত্র।  আর চরিত্রবান ব্যক্তি সর্বদা পুরস্কৃত হয় ।

মন্তব্য : 

চরিত্র মানব জীবনের অলংকার ও অমূল্য সম্পদ। চরিত্র মানব জীবনের মুকুট। তাই বলা হয়- The crown and glory of life in character.

আরও পড়ুন :- ভাব সম্প্রসারণ- অর্থ অনর্থের মূল Class 6, 7, 8, 9, 10 এবং HSC

-একই ভাবসম্প্রসারন এর অন্য আর একটি প্রতিলিপন-

মূলভাব : 

চরিত্রের চেয়ে মূল্যবান জিনিস পৃথিবীতে আর কিছু নেই। হচ্ছে চরিত্র।

সম্প্রসারিত ভাব : 

মানুষের যত রকম সম্পদ আছে, তার মধ্যে চরিত্র সর্বশ্রেষ্ঠ। সচ্চরিত্রের ব্যক্তিগণ সর্বত্রই সম্মান পেয়ে থাকেন। মানুষের কথা, ভাবনা ও কর্মপ্রবাহের কল্যাণকর ভাবই আমাদের কাছে চরিত্র বলে বিবেচিত। মানুষের সর্বোত্তম অলঙ্কার একমাত্র চরিত্রই মানুষকে ন্যায়পথে অটল ও সুদৃঢ় রাখতে পারে। 

সত্যনিষ্ঠা, আত্মসংযম, শ্রদ্ধা, ন্যায়পরায়ণতা ইত্যাদি প্রকৃষ্ট গুণাবলির মধ্যদিয়ে সচ্চরিত্র প্রকাশিত হয়। সৎ প্রকৃতির মানুষ সর্বত্র পূজ্য, সম্মানিত। তারা স্মরণীয় ও বরণীয় ৷পার্থিব ধন-সম্পদের মূল্য নির্ধারণ করা যায়, কিন্তু চরিত্র—ধন অমূল্য। অর্থের মাপকাঠিতে এর মূল্যায়ন করা সম্ভব নয়। 

সচ্চরিত্র ব্যক্তি গরিব হলেও তার শক্তি সাবলীল, সাহস অদম্য। মানুষের কাছে মানুষের নত হবার প্রয়োজন নেই, নত হতে হবে চরিত্রের কাছে।মহামানবদের গৌরবের মূলে তাদের এই চরিত্র। চরিত্রবান ব্যক্তি উদার, বিনয়ী, সত্যবাদী, জ্ঞানতাপস, ন্যায়বান ও স্বাধীনতাকামী। 

চরিত্রই মানুষের জীবনকে উজ্জ্বল ও মহান করে তুলতে পারে। চরিত্রই মানুষের প্রকৃত পরিচয়। একমাত্র চরিত্র বলেই মানুষ জীবনের সার্থকতা খুঁজে পায়। চরিত্রই মানুষের মহামূল্যবান সম্পদ।

হাদিস শরীফে রয়েছে :- "সেই ব্যক্তি সর্বোত্তম যে চরিত্র দিক দিয়ে উত্তম"  কেননা চরিত্রবান ছাড়া কেউ পরহেজগার হতে পারে না। 

মন্তব্য : 

চরিত্রের মতো বড় অলংকার মানব জীবনে আর কিছু নেই। মানুষ একমাত্র চরিত্রের বলেই পুরো পৃথিবীকে তার আয়ত্তে আনতে পারে। যার মধ্যে এই মহামূল্যবান চরিত্র সম্পদটি নেই সেই সবচেয়ে বেশি হতভাগা। 

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

শিক্ষাগার ওয়েবসাইটের নীতিমালা মেনে কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url